৩৩ বছরের কর্মজীবনে এক দিন ছুটি!

১০৫ বছরে পা দিলেন এবার। জন্মদিনের পার্টিতে বন্ধুদের ডেকে জানালেন দীর্ঘ জীবন এবং সফল কর্মজীবনের আসল রহস্য।

তিনি ব্রেন্ডা ওসবর্ন। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম মিররে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদন অনুযায়ী, ১৯১৩ সালে যুক্তরাজ্যের নটিংহামের ম্যানসফিল্ডে তার জন্ম। ১৯৪০-এ ভিক্টোরিয়া হাসপাতালে নার্সিং-এ হাতেখড়ি। দুটি বিশ্বযুদ্ধ, ২৪ বার প্রধানমন্ত্রী বদল দেখা এই নার্স তার ৩৩ বছরের কর্মজীবনে মাত্র এক দিন ছুটি নিয়েছেন অসুস্থতার কারণে। সেবা করেছেন বিশ্বযুদ্ধের আহত সৈন্যদের।

কিন্তু কী করে সম্ভব এমন কর্মনিষ্ঠা? কী করে এই দীর্ঘজীবন পাওয়া গেল? গত ৪ ডিসেম্বর ১০৫ বছরের জন্মদিনে নাতি-নাতনি আত্মীয়-স্বজনরা স্বাভাবিক ভাবেই এই প্রশ্ন করেন ব্রেন্ডাকে।

জবাবে ব্রেন্ডার বলেন, ‘দুটি বিষয়কে আমি জীবনে গুরুত্ব দিয়েছি। কঠোর পরিশ্রম করেছি স্বাস্থ্য ভালো রাখতে আর পুরুষদের এড়িয়ে চলেছি মন ভালো রাখতে।

তার মতে, পুরুষদের যত এড়িয়ে যাওয়া যায় ততই ভালো। ওদের জন্য ঝামেলা পোহানো আসলে বৃথা। ওরা এর যোগ্য নয়।

প্রসঙ্গত, ব্রেন্ডা তার সাদামাটা বাড়িতে রয়েছেন গত ৯৩ বছর ধরে। শারীরিক অসুস্থতার কারণে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাকে। কয়েক দিনের মধ্যেই সুস্থ হয়ে ফের বাড়িতে ফিরে আসেন বৃন্দা।

এই ১০৫ তম জন্মদিনে ব্রেন্ডার টু-বেডরুম ফ্ল্যাটের অন্যান্য শরীক তার দুই বোন, সহকর্মীরা সকলেই বৃন্দাকে উপহারে ভরিয়ে দিয়েছেন। তার আরও দীর্ঘজীবন কামনা করেছেন সকলে।

আপনার মন্তব্য কী?